বয়স ৩৩। ওজন ৪১২ কিলোগ্রাম। মারা গেলেন ব্রিটেনের সবচেয়ে স্থূলকায় ব্যক্তি কার্ল থম্পসন। রবিবার কেন্টের বাড়িতে মারা যান তিনি।

এবছরের গোড়ার দিকে সংবাদপত্রের শিরোনামে চলে এসেছিলেন কার্ল। এক সাক্ষাৎকারে তিনি স্বীকার করেছিলেন, অত্যাধিক মাত্রায় খাওয়ার ফলেই তাঁর ওজন তীব্র গতিতে ঊর্ধ্বগামী হতে শুরু করে। জানা গিয়েছে, প্রতিদিন ১০ হাজার ক্যালোরির খাবার দিয়ে নিজের ক্ষুণ্ণিবৃত্তি করতেন বিশালাকার দেহের অধিকারী কার্ল।

চিকিৎসকরা আগেই আশঙ্কা প্রকাশ করেছিলেন যে, অবিলম্বে অন্তত ২৮৫ কেজি ওজন না কমালে তাঁর প্রাণ সংশয় হতে পারে। কার্ল নিজেও উদ্যোগী হয়েছিলেন নিজের ওজন কমানোর জন্য। একবার কার্ল জানিয়েছিলেন, তিনি ভীষণভাবে চাইছেন নিজের আসল চেহারায় ফিরে যেতে, যখন তাঁর ওজন ছিল ৭২ কেজি। এরপরই জন্য কার্লের কাছে বহু হাসপাতাল থেকে ওজন কমানোর প্রস্তাবও আসতে শুরু করে।

কিন্তু, তার আগেই চলে গেলেন কার্ল। জানা গিয়েছে, গত এক বছর ধরে বাড়ির বাইরে বের হননি তিনি। এমনকী, ওজনের জন্য বেশি নড়াচড়াও করতে পারতেন না। কার্লের শবদেহ বের করতে পুলিশ, অ্যাম্বুলেন্স ও দমকল বাহিনীকে ডাকতে হয়েছিল পরিবারকে। বেশ কয়েক ঘণ্টার চেষ্টায় কার্লের দেহ বাড়ির বাইরে বের করে তারা। পুলিশের এক মুখপাত্র জানান, প্রাথমিকভাবে মনে করা হচ্ছে কার্লের মৃত্যু স্বাভাবিকভাবেই হয়েছে। যদিও, পোস্ট-মর্টেম করা হবে।

print