জিয়ানগর প্রতিনিধি :  পিরোজপুরের জিয়ানগরে প্রেমিকের প্রতারণার শিকার হয়ে এক যুবতী আত্মহত্যা করেছে। এ ঘটনায় পুলিশ প্রেমিকের পিতা আলতাফ মাল ও চাচা ইউসুফ মালকে গ্রেফতার করেছে। ইন্দুরকানী থানা ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, উপজেলার চরণী পত্তাশী গ্রামের নুরুল ইসলামের মেয়ে সালমা আক্তার (২২) একই গ্রামের প্রেমিক কাপড়ের দোকানদার মোঃ ইব্রাহিম মাল (২৮) এর প্রেমে প্রতারিত হয়ে সোমবার রাতে কীটনাশক পান করে অচেতন হয়ে পড়ে। পরে স্বজনরা তাকে উদ্ধার করে পিরোজপুর সদর হাসপাতালে নেয়ার পথে মারা যায়। সালমার পরিবার সূত্রে জানা যায়, বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে দীর্ঘ ৭ বছর ধরে সালমা আক্তারের সাথে একই গ্রামের আলতাফ মালের ছেলে ইব্রাহিম মাল প্রেমের সম্পর্ক করে আসছিল। ওই যুবতীর সরলতার সুযোগ নিয়ে তার সাথে শারীরিক সম্পর্ক গড়ে তোলে এবং তার কাছ থেকে লক্ষাধিক টাকা হাতিয়ে নেয়। কিন্তু গত এক সপ্তাহ আগে অভিযুক্তের পিতা আলতাফ মাল তার ছেলেকে কৌশলে অন্যত্র বিয়ে দিলে ওই যুবতী মানসিক ভাবে ভেঙ্গে পরে। সোমবার রাতে এ বিষয়ে উভয় পক্ষ শালিশ বৈঠকে ঘটনাটি মিমাংশা করার চেষ্টা করে। কিন্তু মিমাংশা না হওয়ায় যুবতী কীটনাশক পানে আত্মহত্যার পথ বেঁচে নেয়। অভিযুক্ত ইব্রাহিম বিয়ের পর থেকে আত্মগোপনে রয়েছে। তার সাথে মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করলে তার নাম্বারটি বন্ধ পাওয়া যায়। ইন্দুরকানী থানার ওসি মোঃ মিজানুল হক জানান, যুবতীর লাশ ময়না তদন্ত করা হয়েছে। জড়িত সন্দেহে ২ জনকে আটক করা হয়েছে এবং এ বিষয়ে মামলার প্রস্তুতি চলছে।

print